শুক্রবার, আগস্ট ১২, ২০২২
The Report
রেজিলিয়েন্স উৎসবঃ পৃথিবী, মানুষ এবং সম্ভাবনা শেষ হল একশনএইড বাংলাদেশ এর রেজিলিয়েন্স ও সংস্কৃতি বিষয়ক দুই দিনব্যাপী উৎসব

রেজিলিয়েন্স উৎসবঃ পৃথিবী, মানুষ এবং সম্ভাবনা শেষ হল একশনএইড বাংলাদেশ এর রেজিলিয়েন্স ও সংস্কৃতি বিষয়ক দুই দিনব্যাপী উৎসব

টিএনএন ডেস্ক
প্রকাশের সময় : June 10, 2022 | বাংলাদেশ

[ঢাকা, ১০ জুন, ২০২২] ‘রেজিলিয়েন্স উৎসবঃ পৃথিবী, মানুষ এবং সম্ভাবনা’ শীর্ষক দুই দিনব্যাপী উৎসবের আয়োজন করেছে একশনএইড বাংলাদেশ (এএবি)। প্রতিকূল পরিস্থিতিতেও দেশের মানুষের অপ্রতিরোধ্য মানসিকতা এবং বাংলাদেশের গৌরবময় ঐতিহ্য, সংস্কৃতি ও আচার-অনুষ্ঠান এই উৎসবের মধ্য দিয়ে তুলে ধরা হয়। দেশের মানুষের সকল প্রতিকূলতার বিরুদ্ধে সংগ্রাম ও জেগে ওঠার শক্তিকে ঘিরে অনুষ্ঠিত এই আয়োজনের লক্ষ্য ছিল বিভিন্ন জনগোষ্ঠীর চ্যালেঞ্জ মোকাবিলার গল্পগুলো তুলে ধরা ও মানুষকে উৎসাহিত করা। গত ৯ ও ১০ জুন ঢাকার গুলশান ২-এ অবস্থিত ‘এনসিসি’ (নাভিদ’স কমেডি ক্লাব)-তে এই উৎসব উদযাপন হয়। বিগত কয়েক দশক ধরে, বাংলাদেশের মানুষ জলবায়ু ও মানব-সৃষ্ট বিপর্যয়, বৈষম্য, অর্থনৈতিক অস্থিতিশীলতা, শরণার্থী সংকট ও বৈশ্বিক মহামারি-সহ অসংখ্য চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন হয়েছে। কিন্তু প্রতিবারই মানুষ নতুন উদ্যমে পুনরুজ্জীবিত হয়েছে এবং অপ্রতিরোধ্য গতিতে সামনে এগিয়ে গিয়েছে। এর সাম্প্রতিক উদাহরণ হচ্ছে গত দুই বছরে দেশে কোভিড-১৯ মহামারির প্রকোপ। করোনা মহামারি সংকটের সময় দেশের জনগণের সম্মিলিত প্রচেষ্টা অনিশ্চয়তা ও হতাশার মধ্যেও মানুষকে আশাবাদী ও প্রাণোচ্ছল থাকতে সাহায্য করেছে। দেশের মানুষের এই সহজাত প্রবৃত্তি এবং অপ্রতিরোধ্য মানসিকতা উদযাপনের দাবি রাখে। আর তাই একশনএইড বাংলাদেশ এই উৎসবের আয়োজন করেছে। বিস্তৃত কার্যক্রমের মধ্য দিয়ে এই উৎসব দেশের মানুষ, তাদের শক্তি, আনন্দ ও সংহতি উদযাপনে সাহায্য করবে। উৎসবের প্রথম দিনের (৯ জুন) মূল আকর্ষণ ছিল– হ্যাপি হোম গার্লস’র পরিবেশনায় উদ্বোধনী পারফরমেন্স; প্রদর্শনী এবং কিয়স্ক উদ্বোধন; ফারাহ্ কবির (কান্ট্রি ডিরেক্টর, একশনএইড বাংলাদেশ), ড. মালেকা বানু (সাধারণ সম্পাদক, বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ) প্রমুখ ‘মাল্টি-ডাইমেনশনাল পারস্পেক্টিভ অব রেজিলিয়েন্স’ শীর্ষক সংলাপে অংশ নেন। উৎসবের দ্বিতীয় দিনে (১০ জুন) একশনএইড বাংলাদেশের অ্যাক্টিভিস্টা নেটওয়ার্কের তরুণদের অংশগ্রহণে ফ্ল্যাশ মব পরিবেশিত হয়। এছাড়াও, বিশিষ্ট বক্তাদের অংশগ্রহণে তিনটি ‘হিউম্যান বুক ক্যাফে’ সেশন অনুষ্ঠিত হয়, যাতে অংশ নেয় – ইমতিয়াজ আহমেদ (ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের অধ্যাপক এবং সেন্টার ফর জেনোসাইড স্টাডিজের পরিচালক), নাভিদ মাহবুব (জনপ্রিয় কমেডিয়ান ও কলামিস্ট), তানিয়া ওয়াহাব (উদ্যোক্তা), আফসান চৌধুরী (সাংবাদিক ও গবেষক), শামীম আখতার (চলচ্চিত্র নির্মাতা ও মিডিয়া কর্মী), শাকিল আহমেদ (রিডিকিউলাস ফিউচারসের ফিউচারিস্ট, এডুকেটর ও স্টোরিটেলার), মাহরুখ মহিউদ্দিন (ব্যবস্থাপনা পরিচালক, দ্য ইউনিভার্সিটি প্রেস লিমিটেড), আফজাল হোসেন (জনপ্রিয় অভিনেতা ও পরিচালক) এবং আহসান রনি (প্রতিষ্ঠাতা, গ্রিনসেভার)। সবশেষে জনপ্রিয় ব্যান্ড ‘জলের গান’ এর পরিবেশনায় সাংস্কৃতিক আয়োজনের মধ্য দিয়ে রেজিলিয়েন্স উৎসবঃ পৃথিবী, মানুষ এবং সম্ভাবনা’ শীর্ষক দুই দিনব্যাপী উৎসবের সমাপ্তি ঘটে। একশনএইড বাংলাদেশ এর কান্ট্রি ডিরেক্টর ফারাহ্ কবির বলেন, “আমাদের সম্প্রদায়ের স্থিতিস্থাপকতার বিভিন্ন গল্প তুলে ধরতে, সর্বস্তরের মানুষের মধ্যে সেতুবন্ধন তৈরি করতে এবং বিশেষ করে তৃণমূলস্তরের মানুষের সাহসী গল্পগুলি ভাগ করার সুযোগ দেওয়ার জন্য আমরা প্রথমবারের মতো এই উত্সবটির আয়োজন করেছি। পৃথিবী, মানুষ এবং সম্ভাবনা- এই উৎসবের থিম সকলের জন্য একটি অনুস্মারক যে আমরা চাইলে একটি ভিন্ন পৃথিবী সম্ভব” বলেন অ্যাকশনএইড বাংলাদেশের কান্ট্রি ডিরেক্টর ফারাহ কবির।” আফসান চৌধুরী (সাংবাদিক ও গবেষক) বলেন, এমন ঘটনা খুঁজে পাওয়া বিরল, যেখানে অভিজ্ঞ ব্যক্তিদের একটি প্যানেল সবাই একত্রিত হয়ে বাংলাদেশ আজ কোথায় দাঁড়িয়েছে এবং জাতি হিসেবে আমরা কোথায় যাচ্ছি, সে বিষয়ে তাদের মতামত বিনিময় করতে পেরেছেন। এই ধরনের অনুশীলন আমাদের আলোকিত করতে পারে, যেমনটা ১৯৭১ সালে একটি জাতি গঠিত হয়েছিল, বিভিন্ন জনগোষ্ঠীর সম্মিলিত প্রচেষ্টায়। ১৯৭১ সালে কীভাবে আমাদের জাতির ভিত্তি স্থাপিত হয়েছিল, সে সম্পর্কে আমরা যত বেশি জানব, ততই আমরা উন্নতি করতে পারব। এছাড়াও উৎসবে ছিল আকর্ষণীয় খেলা, গল্প বলার লাইভ সেশন এবং বিভিন্ন স্টল, যেখান থেকে বিভিন্ন রকমের হস্তশিল্প, বুটিক ও নানা পদের খাবার কেনার সুবিধা ছিল। প্রদর্শনী (ছবি, শিল্পকর্ম, কারুশিল্প, অডিওভিজ্যুয়াল ইত্যাদি) এবং আউড়ি ট্রাস্ট, বাড়ির জিনিস-হ্যাপি হোম, কক্সবাজার রোহিঙ্গা রেসপন্সের স্টল ছিল।